Diclearation Shil No : 127/12
সিলেট, বৃহস্পতিবার, ২৯ জুলাই ২০২১, ১৪ শ্রাবণ ১৪২৮, ১৭ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

শিরোনাম :
প্রাক্তন ছাত্র কল্যাণ পরিষদ ইউকে’র সভাপতি আতাউর রহমান || বালাগঞ্জে দেওয়ান বাজার ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগের কর্মীসভা || প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে বালাগঞ্জে স্বেচ্ছাসেবক লীগের দোয়া মাহফিল || বালাগঞ্জে করোনায় ইউনিয়নের প্যানেল চেয়ারম্যানের মৃত্যু || নৌকায় ভোট চেয়ে বালাগঞ্জে মতিউর রহমান শাহীনের গণসংযোগ অব্যাহত || বালাগঞ্জের উন্নয়নের স্বার্থে নৌকার প্রার্থীকে বিজয়ী করতে হবে- কওছর আহমদ || বালাগঞ্জে বনগাঁও মাদ্রাসায় মতিউর রহমান শাহীনের অনুদান প্রদান || বালাগঞ্জে স্বেচ্ছাসেবক লীগের বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত || বালাগঞ্জ উপজেলা আইন শৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভা অনুষ্ঠিত || নৌকায় ভোট চেয়ে বালাগঞ্জে মতিউর রহমান শাহীনের গণসংযোগ ||

ওসমানীনগরে খুনের ঘটনায় মামলা: পরিকল্পিত দাবি পরিবারের

 প্রকাশিত: ২১, জুন - ২০২১ - ১১:৩৫:৪৬ PM

কূল প্রতিবেদক :: ওসমানীনগরের সোয়ারগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক তপতী রাণী দে লাভলীর হত্যাকাণ্ডে একই ঘর থেকে ফাঁস লাগানো অবস্থায় উদ্ধার করা গৃহকর্মী গৌর চাঁদ ওরফে গৌরাঙ্গ সরকারকে অভিযুক্ত করে ওসমানীনগর থানায় হত্যা মামলা রুজু হয়েছে। শিক্ষিকার ছেলে তন্ময় দে বিপ্লব দায়েরকৃত অভিযোগটি আমলে নিয়ে সোমবার বিকালে মামলাটি রেকর্ড করা হয় জানা গেছে। মামলা নং ২০। 

এদিকে মামলায় অভিযুক্ত গৃহকর্মীর লাশ উদ্ধার নিয়ে রবিবার থানায় অপমৃত্যুর মামলা রুজু করা হলেও গৃহকর্মী পরিবারের দাবি, নিহত স্কুল শিক্ষিকার পারিবারিক কলহের জের ধরে তপতিকে খুনের পর গৃহকর্মী গৌরাঙ্গকেও খুন করে বিষয়টি চাপা দিতে পরিকল্পিতভাবে নিহত গৌরাঙ্গকে বলির পাঠা বানিয়ে জোড়া খুনের ঘটনাকে ভিন্নভাবে প্রবাহিত করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে হত্যাকাণ্ডের মূল ঘাতকরা।

এ ব্যাপারে নিহত গৃহকর্মীর পরিবারের পক্ষ থেকে পৃথক হত্যা মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চালিয়ে যাচ্ছেন বলে নিশ্চিত করেছেন নিহত গৃহকর্মীর বড় ভাই মোর চাঁদ সরকার। 

জানা গেছে, শনিবার দিবাগত রাতে বিবস্ত্র গলাকাটা শিক্ষিকার লাশ ও একই ঘরে গলায় গামছা দিয়ে ফাঁস লাগানো অবস্থায় গৃহকর্মীর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। গৃহকর্মীর বাড়ি সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার দশঘর ইউনিয়নের লহরী গ্রামে। তিনি প্রায় ৬ বছর থেকে ওই শিক্ষিকার পরিবারে গৃহকর্মীর কাজ করছেন। রবিবার ময়নাতদন্ত শেষে লাশ নিজ নিজ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়। তবে কী কারণে এই হত্যাকাণ্ড ঘটে সেই বিষয়ে এখনো পুলিশ কিছু জানতে পারেনি। শিক্ষিকার পরিবার ও পুলিশের দাবি, শিক্ষিকাকে খুন করে ওই গৃহকর্মী নিজেই আত্মহত্যা করে।

পুলিশ জানিয়েছে- তপতীর মৃতদেহের পাশ থেকে একটি ছুরা ও একটি বটি উদ্ধার করা হয়েছে। হত্যাকাণ্ডে এ দু’টি অস্ত্র ব্যবহার করা হয়েছে। তপতীর ঘাড়ের ডান দিকে একটি কুপ ও ঘাড়ের পিছনে ছুরির আঘাত রয়েছে। সন্ধ্যার পর কোনো এক সময়ে এ হত্যাকাণ্ডটি ঘটতে পারে। 

গৃহকর্মী গৌরাঙ্গ সরকারের ভাই অপমৃত্যুর মামলার বাদী গবিন্দ সরকার কান্নাজনিত কণ্ঠে বলেন- ময়নাতদন্তের কথা বলে পুলিশ আমার স্বাক্ষর নিয়েছিল। আমি কোনো অপমৃত্যুও মামলা করিনি। পরিকল্পিতভাবে শিক্ষিকাকে খুনের পর আমার ভাইকে হত্যা করে তার লাশ ফাঁসিতে ঝুলিয়ে রেখেছে খুনীরা। আমি নিজে শিক্ষিকার মেয়ে তন্নীর বাসায় কাজ করার সুবাধে শিক্ষিকার স্বামী-স্ত্রী ও পুত্রের মধ্যে পারিবারিক কলহের বিষয়টি পূর্ব থেকেই অবগত রয়েছি।  

পারিবারিক কলহের জের ধরে শিক্ষিকাসহ আমার ভাইকে খুন করে প্রকৃত ঘটনা আড়াল করতে আমার সহজ-সরল ভাইকে হত্যার পর ফাঁসিতে ঝুলিয়ে রেখেছে ঘাতকরা। সুষ্ট তদন্তপূর্বক আমি আমার ভাইয়ের খুনিদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি। এই বিষয়ে হত্যা মামলার বাদী নিহত শিক্ষিকার পুত্র তন্ময় দে বিপ্লবের বক্তব্য জানতে তাঁর ব্যবহৃত মোবাইল ফোন নাম্বারে কল দেয়া হলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি। 

ওসমানীনগর থানার ওসি শ্যামল বণিক বলেন- শিক্ষিকার ছেলের দায়েরকৃত অভিযোগের ভিত্তিতে থানায় হত্যা মামলা রুজু করা হয়েছে। নিহত গৃহকর্মী গৌরাঙ্গ সরকারের ভাইয়ের অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন- সার্বিক বিষয়গুলো পুলিশ তদন্তে রয়েছে। ময়নাতদন্তের রির্পোটসহ সার্বিক পর্যালোচনার পর এ ব্যাপারে বিস্তরিত বলা যাবে।

প্রসঙ্গত, উপজেলার দয়ামীর ইউনিয়নেরসোয়ারগাঁও গ্রামের ডা. বিজয় ভুষন দে‘র বাড়ির বসত ঘরের মেঝে থেকে তারই স্ত্রীর স্কুল শিক্ষিকা তাপত রানী দে বিবস্ত্র গলাকাটা লাশ এবং একই ঘরের কাঠের উপর থেকে গৃহকর্মী গৌরাঙ্গ সরকারের ঝুলন্ত লাশ শনিবার দিনগত রাত ১২টায় উদ্ধার করে থানা পুলিশ। ময়না তদন্ত শেয়ে রবিবার রাতে নিজ নিজ বাড়িতে  শিক্ষিকা ও গৃহকর্মীর অন্তুষ্টিক্রিয়ার সম্পন্ন হয়। তপতী ও বিজয় দম্পত্তির এক ছেলে ও তাপসী দে তন্নী নামের এক মেয়ে রয়েছে। স্বামীসহ ছেলে- মেয়ে ও মেয়ের স্বামী পেশায় চিকিৎসক বলে জানা গেছে।

কূল/ইমনশাহ্-২১

আপনার মন্তব্য

এ বিভাগের আরও খবর


সর্বাধিক পঠিত

সর্বশেষ

Top